নারায়ণগঞ্জ ০৮:০৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
সোনারগাঁওয়ে কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত সিদ্ধিরগঞ্জে ৪টি কারখানার অবৈধ গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন হারামের পয়সা ব্যারামে খায় ,আমি হারাম খাই না খেতেও দেই না-সেলিম ওসমান ভূমি সম্পর্কিত সমস্যা থাকলে গণশুনানিতে আসার আহবান- না.গঞ্জে জেলা  প্রশাসক সিদ্ধিরগঞ্জে গ্যাসের দাবিতে ঢাকা-চটগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ সোনারগাঁওয়ে জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ ২০২৪ অনুষ্ঠিত র‌্যাব পরিচয়ে ৫২ লাখ টাকা ছিনতাইয়ের ঘটনায় গ্রেফতার-৪ সিদ্ধিরগঞ্জে কাতার প্রবাসীর বাড়িতে ডাকাতি চিকিৎসার নামে কোনো প্রকার হয়রানি মেনে নেওয়া হবে না ঃ স্বাস্থ্যমন্ত্রী নাসিকের ময়লার গাড়ির ধাক্কায় গর্ভবতীর পোশাক শ্রমিক নিহত

গায়েবী’ মামলায় বিএনপি নেতাকর্মীদের জন্য বট বৃক্ষের ছাঁয়া এডভোকেট সাখাওয়াৎ

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১২:৩২:৫৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ মার্চ ২০২১
  • ১৮১ বার পড়া হয়েছে

শহর প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জে এখন হামলা মামলায় বিএনপির নেতাকর্মীদের একমাত্র ভরসার স্থল হলেন এডভোকেট সাখাওয়াৎ হোসেন খান। বছরের পর বছর ধরে সারা নারায়ণগঞ্জ জেলায় মামলা মোকদ্দমায় জব্দ বিএনপির নেতাকর্মীদের আইনী সহায়তা দিয়ে যাচ্ছেন তিনি। নারায়ণগঞ্জ শহর, বন্দর, ফতুল্লা, সিদ্ধিরগঞ্জ, সোনারগাঁও, রুপগঞ্জ ও আড়াই হাজার উপজেলার নেতাকর্মীদের শত শত মামলা দেখাশোনা করছেন এডভোকেট সাখাওয়াৎ হোসেন খান। ফলে জেলার সর্ব স্থরের নেতা কর্মীদের কাছেও একটি প্রিয় নাম হলো এডভোকেট সাখাওয়াৎ।

এদিকে গতকাল বন্দরের বেশ কয়েকজন নেতার হাজিরা ছিলো নারায়ণগঞ্জ কোর্টে। তারা হাজিরা দিতে এসেছিলেন। তাদের মাঝে ছিলেন বন্দর থানা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি মহিউদ্দি শিশির। তিনি বলেন, আপনারা জানেন আমরা নিয়মতান্ত্রিক আন্দোলন সংগ্রাম করার পরেও বর্তমান সরকার আমাদের বিরুদ্ধে একের পর এক মিথ্যা মামলা দিয়েছে। গায়েবী মামলা দিয়ে আমাদেরকে গ্রেফতার হয়রানী করে চলেছে। কিন্তু শুরু থেকেই জননেতা এডভোকেট সাখাওয়াৎ হোসেন খান আইনী সহায়তা নিয়ে আমাদের পাশে দাড়িয়েছেন। তিনি আমাদেরকে সব সময় আগলে রেখেছেন। তিনি আমাদেরকে বট বৃক্ষের মতো ছায়া দিয়ে চলেছেন। আমরা তার কাছে চীর কৃতজ্ঞ।

এ বিষয়ে এডভোকেট সাখাওয়াৎ হোসেন খান বলেন, বর্তমান বিনা ভোটের স্বৈরাচার সরকার আমাদের দলের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে যেভাবে মিথ্যা গায়েবী মামলা দিয়েছে এ দেশে তা নজিরবিহীন। কোনো কোনো নেতার নামে ৩০/৪০ টি পর্যন্ত মামলা দিয়েছে।

এসব মামলার কোনোটিরই কোনো প্রমান নেই। সবই ভিত্তিহীন বানোয়াট মামলা। একটি মামলাও সরকার পক্ষ্য আদালতে প্রমান করতে পারবে না। আপনার জানেন মামলা দিতে গিয়ে মৃত নেতা বা বিদেশে অবস্থান করছে এমন নেতার নামেও মামলা দেয়া হয়েছে। ফলে বুঝাই যায় গনতান্দ্রিক আন্দোলন দমাতে গিয়ে সরকার কি নোংড়া খেলা খেলেছে। তাই আমরা আদালতে এসব মামলা লড়ছি এবং সব মামলায়ই নেতাকর্মীরা আদালতে নির্দোষ প্রমানীত হবেন ইনশাআল্লাহ।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

সোনারগাঁওয়ে কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত

গায়েবী’ মামলায় বিএনপি নেতাকর্মীদের জন্য বট বৃক্ষের ছাঁয়া এডভোকেট সাখাওয়াৎ

আপডেট সময় : ১২:৩২:৫৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ মার্চ ২০২১

শহর প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জে এখন হামলা মামলায় বিএনপির নেতাকর্মীদের একমাত্র ভরসার স্থল হলেন এডভোকেট সাখাওয়াৎ হোসেন খান। বছরের পর বছর ধরে সারা নারায়ণগঞ্জ জেলায় মামলা মোকদ্দমায় জব্দ বিএনপির নেতাকর্মীদের আইনী সহায়তা দিয়ে যাচ্ছেন তিনি। নারায়ণগঞ্জ শহর, বন্দর, ফতুল্লা, সিদ্ধিরগঞ্জ, সোনারগাঁও, রুপগঞ্জ ও আড়াই হাজার উপজেলার নেতাকর্মীদের শত শত মামলা দেখাশোনা করছেন এডভোকেট সাখাওয়াৎ হোসেন খান। ফলে জেলার সর্ব স্থরের নেতা কর্মীদের কাছেও একটি প্রিয় নাম হলো এডভোকেট সাখাওয়াৎ।

এদিকে গতকাল বন্দরের বেশ কয়েকজন নেতার হাজিরা ছিলো নারায়ণগঞ্জ কোর্টে। তারা হাজিরা দিতে এসেছিলেন। তাদের মাঝে ছিলেন বন্দর থানা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি মহিউদ্দি শিশির। তিনি বলেন, আপনারা জানেন আমরা নিয়মতান্ত্রিক আন্দোলন সংগ্রাম করার পরেও বর্তমান সরকার আমাদের বিরুদ্ধে একের পর এক মিথ্যা মামলা দিয়েছে। গায়েবী মামলা দিয়ে আমাদেরকে গ্রেফতার হয়রানী করে চলেছে। কিন্তু শুরু থেকেই জননেতা এডভোকেট সাখাওয়াৎ হোসেন খান আইনী সহায়তা নিয়ে আমাদের পাশে দাড়িয়েছেন। তিনি আমাদেরকে সব সময় আগলে রেখেছেন। তিনি আমাদেরকে বট বৃক্ষের মতো ছায়া দিয়ে চলেছেন। আমরা তার কাছে চীর কৃতজ্ঞ।

এ বিষয়ে এডভোকেট সাখাওয়াৎ হোসেন খান বলেন, বর্তমান বিনা ভোটের স্বৈরাচার সরকার আমাদের দলের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে যেভাবে মিথ্যা গায়েবী মামলা দিয়েছে এ দেশে তা নজিরবিহীন। কোনো কোনো নেতার নামে ৩০/৪০ টি পর্যন্ত মামলা দিয়েছে।

এসব মামলার কোনোটিরই কোনো প্রমান নেই। সবই ভিত্তিহীন বানোয়াট মামলা। একটি মামলাও সরকার পক্ষ্য আদালতে প্রমান করতে পারবে না। আপনার জানেন মামলা দিতে গিয়ে মৃত নেতা বা বিদেশে অবস্থান করছে এমন নেতার নামেও মামলা দেয়া হয়েছে। ফলে বুঝাই যায় গনতান্দ্রিক আন্দোলন দমাতে গিয়ে সরকার কি নোংড়া খেলা খেলেছে। তাই আমরা আদালতে এসব মামলা লড়ছি এবং সব মামলায়ই নেতাকর্মীরা আদালতে নির্দোষ প্রমানীত হবেন ইনশাআল্লাহ।