নারায়ণগঞ্জ ০৩:৪০ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
সোনারগাঁওয়ে কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত সিদ্ধিরগঞ্জে ৪টি কারখানার অবৈধ গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন হারামের পয়সা ব্যারামে খায় ,আমি হারাম খাই না খেতেও দেই না-সেলিম ওসমান ভূমি সম্পর্কিত সমস্যা থাকলে গণশুনানিতে আসার আহবান- না.গঞ্জে জেলা  প্রশাসক সিদ্ধিরগঞ্জে গ্যাসের দাবিতে ঢাকা-চটগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ সোনারগাঁওয়ে জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ ২০২৪ অনুষ্ঠিত র‌্যাব পরিচয়ে ৫২ লাখ টাকা ছিনতাইয়ের ঘটনায় গ্রেফতার-৪ সিদ্ধিরগঞ্জে কাতার প্রবাসীর বাড়িতে ডাকাতি চিকিৎসার নামে কোনো প্রকার হয়রানি মেনে নেওয়া হবে না ঃ স্বাস্থ্যমন্ত্রী নাসিকের ময়লার গাড়ির ধাক্কায় গর্ভবতীর পোশাক শ্রমিক নিহত

রূপগঞ্জে দারোগার উপর ছাত্রলীগের হামলা, অস্ত্র ছিনতাইয়ের পর ফেরত

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১১:১৪:৫২ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০১৯
  • ১৫০ বার পড়া হয়েছে

রূপগঞ্জ প্রতিনিধি ঃ নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে মৌটুসি নামে এক নারীর কাছ থেকে স্বর্ণের চেইন ছিনতাইকে কেন্দ্র করে স্থানীয় ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা এক দারোগার উপর হামলা চালিয়ে মাথা ফাটিয়ে দিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসময় ওই দারোগার কাছ থেকে গুলি ভর্তি পিস্তল ছিনিয়ে নেয়া হয়। পরে পুলিশ প্রশাসনের চাপের মুখে ছিনিয়ে নেয়া গুলি ভর্তি পিস্তলটি ফিরিয়ে দেয়া হয়। গত শনিবার রাতে উপজেলার ভুলতা ইউনিয়নের টেলাপাড়া এলাকায় ঘটে এ ঘটনা।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, উপজেলার বলাইখা এলাকার মাহমুদ ও তার স্ত্রী মৌটুসী সন্ধ্যার পর আমলাব এলাকা দিয়ে নিজ বাড়িতে আসতেছিলেন। শিংলাব এলাকায়ং পৌছাবামাত্র একদল ছিনতাইকারী তাদের স্বামী-স্ত্রীকে আটক করে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ফেলে। এসময় মৌটুসীর গলায় থাকা একটি স্বর্ণের চেইন ছিনিয়ে নেয়। পরে তারা স্বামী-স্ত্রী ভুলতা পুলিশ ফাঁড়িতে এসে ছিনতাইয়ের বিষয়ে অভিযোগ করেন। আর এ অভিযোগের ভিত্তিত্বে ভুলতা পুলিশ ফাঁড়ির দারোগা নাদিরুজ্জামান, এএসআই রাশেদ, এটিএসআই ফারুক ও কনস্টেবল কবির ঘটনাস্থলে গিয়ে সন্দেহ জনক ভাবে এক যুবককে আটক করে। এক পর্যায়ে ভুলতা ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি হামজালাকেও আটক করে ফেলে। হামজালাকে আটক করায় তার সহযোগীরা ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে। পরে টেনে হেচরে নিয়ে যাওয়ার সময় দারোগা নাদিরুজ্জামানের উপর হামলা চালায় হামজালার লোকজন। এসময় বাস দিয়ে মাথা ফাটিয়ে দেয়া হয়। লাঠিপেটা করা হয় শরীরে। এক পর্যায়ে নাদিরুজ্জামানের কোমড়ে থাকা গুলিভর্তি পিস্তলটি ছিনিয়ে নেয়া হয়। উপস্থিত পুলিশ সদস্যরা গুরুতর আহত দারোগা নাদিরুজ্জামানকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। ঘটনার পর থেকেই পুরো এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। পুরুষ শুন্যে হয়ে পড়ে পুরো এলাকা।
দারোগার উপর হামলা ও মাথা ফাটিয়ে গুলি ভর্তি পিস্তল ছিনিয়ে নেয়ার খবর ছড়িয়ে পড়লে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)সহ থানা পুলিশের একাধিক টিম ঘটনাস্থল ও এর আশ-পাশের এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে প্রায় ৭ জনকে আটক করে। পরে পুলিশ প্রশাসনের চাপের মুখে ছিনিয়ে নেয়া গুলি ভর্তি পিস্তলটি ফিরিয়ে দেয়া হয়। তবে, ভুলতা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ রফিকুল ইসলাম বলেন, ঘটনাস্থলের কচুরিপানার ভেতর থেকে গুলি ভর্তি পিস্তলটি উদ্ধার করা হয়।
এলাকাবাসীর অভিযোগ, হামজালার নেতৃত্বে তার লোকজন ছাত্রলীগের নাম ব্যবহার করে ভুলতাসহ আশ-পাশের এলাকায় চুরি, ছিনতাই, ডাকাতিসহ সন্ত্রাসী কর্মকান্ড করে আসছে। এলাকাবাসী এদের ভয়ে প্রতিবাদ করার সাহস টুকু পায়না। তাদের অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে এলাকাবাসী।
রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল হক বলেন, এ ঘটনায় রূপগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। অভিযুক্তদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির ব্যবস্থা করা হবে। \

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

সোনারগাঁওয়ে কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত

রূপগঞ্জে দারোগার উপর ছাত্রলীগের হামলা, অস্ত্র ছিনতাইয়ের পর ফেরত

আপডেট সময় : ১১:১৪:৫২ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০১৯

রূপগঞ্জ প্রতিনিধি ঃ নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে মৌটুসি নামে এক নারীর কাছ থেকে স্বর্ণের চেইন ছিনতাইকে কেন্দ্র করে স্থানীয় ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা এক দারোগার উপর হামলা চালিয়ে মাথা ফাটিয়ে দিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসময় ওই দারোগার কাছ থেকে গুলি ভর্তি পিস্তল ছিনিয়ে নেয়া হয়। পরে পুলিশ প্রশাসনের চাপের মুখে ছিনিয়ে নেয়া গুলি ভর্তি পিস্তলটি ফিরিয়ে দেয়া হয়। গত শনিবার রাতে উপজেলার ভুলতা ইউনিয়নের টেলাপাড়া এলাকায় ঘটে এ ঘটনা।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, উপজেলার বলাইখা এলাকার মাহমুদ ও তার স্ত্রী মৌটুসী সন্ধ্যার পর আমলাব এলাকা দিয়ে নিজ বাড়িতে আসতেছিলেন। শিংলাব এলাকায়ং পৌছাবামাত্র একদল ছিনতাইকারী তাদের স্বামী-স্ত্রীকে আটক করে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ফেলে। এসময় মৌটুসীর গলায় থাকা একটি স্বর্ণের চেইন ছিনিয়ে নেয়। পরে তারা স্বামী-স্ত্রী ভুলতা পুলিশ ফাঁড়িতে এসে ছিনতাইয়ের বিষয়ে অভিযোগ করেন। আর এ অভিযোগের ভিত্তিত্বে ভুলতা পুলিশ ফাঁড়ির দারোগা নাদিরুজ্জামান, এএসআই রাশেদ, এটিএসআই ফারুক ও কনস্টেবল কবির ঘটনাস্থলে গিয়ে সন্দেহ জনক ভাবে এক যুবককে আটক করে। এক পর্যায়ে ভুলতা ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি হামজালাকেও আটক করে ফেলে। হামজালাকে আটক করায় তার সহযোগীরা ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে। পরে টেনে হেচরে নিয়ে যাওয়ার সময় দারোগা নাদিরুজ্জামানের উপর হামলা চালায় হামজালার লোকজন। এসময় বাস দিয়ে মাথা ফাটিয়ে দেয়া হয়। লাঠিপেটা করা হয় শরীরে। এক পর্যায়ে নাদিরুজ্জামানের কোমড়ে থাকা গুলিভর্তি পিস্তলটি ছিনিয়ে নেয়া হয়। উপস্থিত পুলিশ সদস্যরা গুরুতর আহত দারোগা নাদিরুজ্জামানকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। ঘটনার পর থেকেই পুরো এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। পুরুষ শুন্যে হয়ে পড়ে পুরো এলাকা।
দারোগার উপর হামলা ও মাথা ফাটিয়ে গুলি ভর্তি পিস্তল ছিনিয়ে নেয়ার খবর ছড়িয়ে পড়লে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)সহ থানা পুলিশের একাধিক টিম ঘটনাস্থল ও এর আশ-পাশের এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে প্রায় ৭ জনকে আটক করে। পরে পুলিশ প্রশাসনের চাপের মুখে ছিনিয়ে নেয়া গুলি ভর্তি পিস্তলটি ফিরিয়ে দেয়া হয়। তবে, ভুলতা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ রফিকুল ইসলাম বলেন, ঘটনাস্থলের কচুরিপানার ভেতর থেকে গুলি ভর্তি পিস্তলটি উদ্ধার করা হয়।
এলাকাবাসীর অভিযোগ, হামজালার নেতৃত্বে তার লোকজন ছাত্রলীগের নাম ব্যবহার করে ভুলতাসহ আশ-পাশের এলাকায় চুরি, ছিনতাই, ডাকাতিসহ সন্ত্রাসী কর্মকান্ড করে আসছে। এলাকাবাসী এদের ভয়ে প্রতিবাদ করার সাহস টুকু পায়না। তাদের অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে এলাকাবাসী।
রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল হক বলেন, এ ঘটনায় রূপগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। অভিযুক্তদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির ব্যবস্থা করা হবে। \