নারায়ণগঞ্জ ০৯:২২ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
নাসিকের ময়লার গাড়ির ধাক্কায় গর্ভবতীর পোশাক শ্রমিক নিহত সোনারগাঁয়ের ১টি হত্যা মামলার প্রধান আসামিসহ দুজনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১১ নারায়ণগঞ্জে ৩টি উপজেলায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলেন যারা গুণী জনদের পদচারণায়  উদযাপিত  দৈনিক আজকের নীর বাংলা পত্রিকা’র ১৫ তম  বর্ষপূর্তি সিদ্ধিরগঞ্জে রাজউকের অভিযানে ক্ষুব্ধ ভবন মালিকরা রেকমত আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের মজিবুর রহমান সভাপতির দায়িত্ব নিয়েই শিক্ষার মান উন্নয়নের তাগিদ অস্ত্রের লাইসেন্সের আবেদন না করেও অপপ্রচারের শিকার মহিউদ্দিন মোল্লা ! সাংবাদিক শাওনের বাবা ফিরোজ আহমেদ আর নেই রিয়াদে জমকালো আয়োজনে মাই টিভির ১৫ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন রিয়াদে প্রিমিয়াম ফুটবল লীগের ফাইনাল অনুষ্ঠিত

ফতুল্লায় পাসপোর্ট করতে এসে র‌্যাবের হাতে নারীসহ আটক ২ রোহিঙ্গা

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১১:৫০:০২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৩ মার্চ ২০২১
  • ১১৯ বার পড়া হয়েছে

ফতুল্লা প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জে ফতুল্লায় পাসপোর্ট করতে এসে র‌্যাবের হাতে ধরা পড়েছে নারীসহ দুই রোঙ্গিা নাগরিক। মঙ্গলবার বিকালে র‌্যাব-১১ এর একটি টিম ফতুল্লার রঘুনাথপুর নতুন রাস্তার সংলগ্ন নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের সামনে থেকে তাদের আটক করে। তারা হলো- মোঃ সুমন (৩২) ও নুর তাজ (১৮)। এসময় তাদের হেফাজত থেকে একটি ভূয়া জাতীয় পরিচয়পত্র, একটি ভূয়া জন্ম নিবন্ধন, একটি পাসপোর্টের আবেদন ফরম ও একটি মোবাইল উদ্ধার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃত মোঃ সুমনের বাড়ী বরিশালের গৌরনদী থানাধীন বাসুদিপাড়া ও নুর তাজ দীর্ঘদিন ধরে ঢাকার সবুজবাগ এলাকায় বসবাস করে আসছে।

র‌্যাব-১১ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো: জসিম উদ্দিন চৌধুরী পিপিএম জানান, গ্রেপ্তারকৃত নুর তাজ কক্সবাজারের টেকনাফ রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে এসে তার সহযোগী পাসপোর্টের দালাল মোঃ সুমনের সহায়তায় বিদেশে যাওয়ার জন্য পাসপোর্ট তৈরী করতে নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসে আবেদন করে। নুর তাজ আরও জানায় যে, তার কোন পিতা-মাতা নাই। সে টেকনাফে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে তার পালিত মা আমেনার কাছে থাকে। কিন্তু নুর তাজের কাছ থেকে জব্দকৃত আলামত পর্যালোচনা ও প্রাথমিক অনুসন্ধানে জানা যায়, তার বাবার নাম সাদিক যিনি বর্তমানে অস্ট্রেলিয়ায় বসবাস করছে। নুর তাজ তার মা শারমিন এবং দুই ভাই আনোয়ার হোসেন ও পরেশ সাদিকদের সাথে ঢাকার মুগদা এলাকায় ৪ বছর যাবৎ একটি ভাড়া বাসায় থাকে। তারও পূর্বে বেশ কয়েকবার তারা নারায়ণগঞ্জের জালকুড়ি এলাকায় বসবাস করতো। সে রোহিঙ্গা হয়েও বাংলাদেশী নাগরিক হিসেবে পরিচয় দিয়ে তার মায়ের নামে জাতীয় পরিচয়পত্র, তার ভাই আনোয়ার হোসেনের নামে পাসপোর্ট তৈরী করে। এছাড়া নিজের নামে ২০২০ সালে জন্ম সনদ পত্র তৈরী করে তার মায়ের জাতীয় পরিচয়পত্র ব্যবহার করে পাসপোর্ট তৈরী করতে আসে। এমন তথ্যের ভিত্তিতে মঙ্গলবার র‌্যাব অভিযান চালিয়ে হাতে নাতে নুর তাজ ও তার সহযোগি সুমনকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব।

র‌্যাবের এই কর্মকর্তা আরও জানান, গ্রেপ্তারকৃত মোঃ সুমন ঢাকার মতিঝিল এলাকায় ট্রাভেল এজেন্সীতে চাকুরীর আড়ালে পাসপোর্ট, জন্ম সনদ ও জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরীতে সহায়তা করে তাদের কাছ থেকে মোটা অঙ্কের টাকা হাতিয়ে নেয়। গ্রেপ্তাকৃত দুইজনের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

নাসিকের ময়লার গাড়ির ধাক্কায় গর্ভবতীর পোশাক শ্রমিক নিহত

ফতুল্লায় পাসপোর্ট করতে এসে র‌্যাবের হাতে নারীসহ আটক ২ রোহিঙ্গা

আপডেট সময় : ১১:৫০:০২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৩ মার্চ ২০২১

ফতুল্লা প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জে ফতুল্লায় পাসপোর্ট করতে এসে র‌্যাবের হাতে ধরা পড়েছে নারীসহ দুই রোঙ্গিা নাগরিক। মঙ্গলবার বিকালে র‌্যাব-১১ এর একটি টিম ফতুল্লার রঘুনাথপুর নতুন রাস্তার সংলগ্ন নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের সামনে থেকে তাদের আটক করে। তারা হলো- মোঃ সুমন (৩২) ও নুর তাজ (১৮)। এসময় তাদের হেফাজত থেকে একটি ভূয়া জাতীয় পরিচয়পত্র, একটি ভূয়া জন্ম নিবন্ধন, একটি পাসপোর্টের আবেদন ফরম ও একটি মোবাইল উদ্ধার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃত মোঃ সুমনের বাড়ী বরিশালের গৌরনদী থানাধীন বাসুদিপাড়া ও নুর তাজ দীর্ঘদিন ধরে ঢাকার সবুজবাগ এলাকায় বসবাস করে আসছে।

র‌্যাব-১১ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো: জসিম উদ্দিন চৌধুরী পিপিএম জানান, গ্রেপ্তারকৃত নুর তাজ কক্সবাজারের টেকনাফ রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে এসে তার সহযোগী পাসপোর্টের দালাল মোঃ সুমনের সহায়তায় বিদেশে যাওয়ার জন্য পাসপোর্ট তৈরী করতে নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসে আবেদন করে। নুর তাজ আরও জানায় যে, তার কোন পিতা-মাতা নাই। সে টেকনাফে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে তার পালিত মা আমেনার কাছে থাকে। কিন্তু নুর তাজের কাছ থেকে জব্দকৃত আলামত পর্যালোচনা ও প্রাথমিক অনুসন্ধানে জানা যায়, তার বাবার নাম সাদিক যিনি বর্তমানে অস্ট্রেলিয়ায় বসবাস করছে। নুর তাজ তার মা শারমিন এবং দুই ভাই আনোয়ার হোসেন ও পরেশ সাদিকদের সাথে ঢাকার মুগদা এলাকায় ৪ বছর যাবৎ একটি ভাড়া বাসায় থাকে। তারও পূর্বে বেশ কয়েকবার তারা নারায়ণগঞ্জের জালকুড়ি এলাকায় বসবাস করতো। সে রোহিঙ্গা হয়েও বাংলাদেশী নাগরিক হিসেবে পরিচয় দিয়ে তার মায়ের নামে জাতীয় পরিচয়পত্র, তার ভাই আনোয়ার হোসেনের নামে পাসপোর্ট তৈরী করে। এছাড়া নিজের নামে ২০২০ সালে জন্ম সনদ পত্র তৈরী করে তার মায়ের জাতীয় পরিচয়পত্র ব্যবহার করে পাসপোর্ট তৈরী করতে আসে। এমন তথ্যের ভিত্তিতে মঙ্গলবার র‌্যাব অভিযান চালিয়ে হাতে নাতে নুর তাজ ও তার সহযোগি সুমনকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব।

র‌্যাবের এই কর্মকর্তা আরও জানান, গ্রেপ্তারকৃত মোঃ সুমন ঢাকার মতিঝিল এলাকায় ট্রাভেল এজেন্সীতে চাকুরীর আড়ালে পাসপোর্ট, জন্ম সনদ ও জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরীতে সহায়তা করে তাদের কাছ থেকে মোটা অঙ্কের টাকা হাতিয়ে নেয়। গ্রেপ্তাকৃত দুইজনের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।