নারায়ণগঞ্জ ০১:১৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বিএনপির দুই কাউন্সিলরকে আওয়ামীলীগ নেতার হুশিয়ারী

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১২:১৫:৪৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২১
  • ১৩ বার পড়া হয়েছে

নারায়ণগঞ্জ সংবাদ ডটকম:

নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক কাজিম উদ্দিন প্রধান বলেছেন, স্বাধীনতাবিরোধী শক্তিরা বাংলাকে এখনো রাষ্ট্র ভাষা হিসেবে মেনে নিতে পারেনি। তাই তার শহীদ মিনারে এসে হাত তালি, শ্লোগান ও জুতা পায়ে বেদিতে উঠে শহীদ মিনার অবমাননা করেছে। বিএনপি জামাত হঠাৎ করেই যেখানে সেখানে উত্তেজনা সৃষ্টি করবে, এটা জনগণ মেনে নিবে না। সাবধান করে দিচ্ছি ফার্দার আর যদি তাল বাহানা করেন তাহলে এক চুলও ছাড় দেয়া হবে না।

গত ২১ ফেব্রুয়ারি মাতৃভাষা দিবসে বন্দরে শহীদ মিনারকে অবমাননা করেছে বিএনপি। এমন অভিযোগ তুলে ২২ ফেব্রুয়ারি সোমবার বিকেলে বন্দরে একটি প্রতিবাদ সভা ও বিক্ষোভ মিছিলের বিশেষ অতিথির বক্তব্য তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, প্রধাণমন্ত্রী গণতন্ত্রের বিশ্বাসী। তাই আমরা চাই সবাই মিলে মিশে থাকি। কিন্তু আপনারা ক্ষমতায় থাকা অবস্থায় আমরা যদি এটা করতাম তাহলে আমাদের আর ঘরে থাকতে দিতেন না। কিন্তু আমরা ধৈর্য ধরেছি। আমরা যদি সেদিন ধৈর্য্য হারাতাম তাহলে কেউ পালিয়ে যেতে পারতেন না। এ শহীদ মিনার অবমাননা কখনো মেনে নেয়া হবে না। যে দুজন কাউন্সিলর (২১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হান্নান সরকার ও ২২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সুলতান আহমেদ) এখানে এসে লাফালাফি করেছেন আপনাদেরও কিন্তু ছাড় দেয়া হবে না। প্রয়োজনে প্রত্যেক পাড়া মহল্লায় আবারো সংগ্রাম পরিষদ গড়ে তুলে বঙ্গবন্ধু’র আদর্শকে প্রতিষ্ঠিত করব।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

বিএনপির দুই কাউন্সিলরকে আওয়ামীলীগ নেতার হুশিয়ারী

আপডেট সময় : ১২:১৫:৪৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২১

নারায়ণগঞ্জ সংবাদ ডটকম:

নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক কাজিম উদ্দিন প্রধান বলেছেন, স্বাধীনতাবিরোধী শক্তিরা বাংলাকে এখনো রাষ্ট্র ভাষা হিসেবে মেনে নিতে পারেনি। তাই তার শহীদ মিনারে এসে হাত তালি, শ্লোগান ও জুতা পায়ে বেদিতে উঠে শহীদ মিনার অবমাননা করেছে। বিএনপি জামাত হঠাৎ করেই যেখানে সেখানে উত্তেজনা সৃষ্টি করবে, এটা জনগণ মেনে নিবে না। সাবধান করে দিচ্ছি ফার্দার আর যদি তাল বাহানা করেন তাহলে এক চুলও ছাড় দেয়া হবে না।

গত ২১ ফেব্রুয়ারি মাতৃভাষা দিবসে বন্দরে শহীদ মিনারকে অবমাননা করেছে বিএনপি। এমন অভিযোগ তুলে ২২ ফেব্রুয়ারি সোমবার বিকেলে বন্দরে একটি প্রতিবাদ সভা ও বিক্ষোভ মিছিলের বিশেষ অতিথির বক্তব্য তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, প্রধাণমন্ত্রী গণতন্ত্রের বিশ্বাসী। তাই আমরা চাই সবাই মিলে মিশে থাকি। কিন্তু আপনারা ক্ষমতায় থাকা অবস্থায় আমরা যদি এটা করতাম তাহলে আমাদের আর ঘরে থাকতে দিতেন না। কিন্তু আমরা ধৈর্য ধরেছি। আমরা যদি সেদিন ধৈর্য্য হারাতাম তাহলে কেউ পালিয়ে যেতে পারতেন না। এ শহীদ মিনার অবমাননা কখনো মেনে নেয়া হবে না। যে দুজন কাউন্সিলর (২১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হান্নান সরকার ও ২২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সুলতান আহমেদ) এখানে এসে লাফালাফি করেছেন আপনাদেরও কিন্তু ছাড় দেয়া হবে না। প্রয়োজনে প্রত্যেক পাড়া মহল্লায় আবারো সংগ্রাম পরিষদ গড়ে তুলে বঙ্গবন্ধু’র আদর্শকে প্রতিষ্ঠিত করব।