নারায়ণগঞ্জ ১২:২০ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
নাসিকের ময়লার গাড়ির ধাক্কায় গর্ভবতীর পোশাক শ্রমিক নিহত সোনারগাঁয়ের ১টি হত্যা মামলার প্রধান আসামিসহ দুজনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১১ নারায়ণগঞ্জে ৩টি উপজেলায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলেন যারা গুণী জনদের পদচারণায়  উদযাপিত  দৈনিক আজকের নীর বাংলা পত্রিকা’র ১৫ তম  বর্ষপূর্তি সিদ্ধিরগঞ্জে রাজউকের অভিযানে ক্ষুব্ধ ভবন মালিকরা রেকমত আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের মজিবুর রহমান সভাপতির দায়িত্ব নিয়েই শিক্ষার মান উন্নয়নের তাগিদ অস্ত্রের লাইসেন্সের আবেদন না করেও অপপ্রচারের শিকার মহিউদ্দিন মোল্লা ! সাংবাদিক শাওনের বাবা ফিরোজ আহমেদ আর নেই রিয়াদে জমকালো আয়োজনে মাই টিভির ১৫ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন রিয়াদে প্রিমিয়াম ফুটবল লীগের ফাইনাল অনুষ্ঠিত

সোনারগাঁয়ে অনুমোদনহীন কারখানায় অভিযান বিপুল পরিমান ভেজাল খাদ্য জব্দ আটক-১

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১০:৩০:২৬ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ অগাস্ট ২০২০
  • ১৫২ বার পড়া হয়েছে

স্টাফ রিপোর্টার :সোনারগাঁয়ের সাদিপুর এলাকায় অননুমোদিত এক ভেজাল ও মানহীন বিভিন্ন খাদ্য সামগ্রী তৈরির কারখানায় অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমান ভেজাল খাদ্য ও পানি জব্দ করেছে র‌্যাব। এসময় মো: মজিবুর রহমান নামে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। সোমবার (১০ আগস্ট) সন্ধ্যায় র‌্যাব এ অভিযান চালায়।
মঙ্গলবার (১১ আগস্ট) দুপুরে র‌্যাব-১১ এর সদর দপ্তরের সিপিএসপি কোম্পানী কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো: জসিম উদ্দীন চৌধুরী পিপিএম স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।
র‌্যাব জানায়, কারখানায় তৈরি অবস্থায় ১০০ মিঃলিঃ ওজনের ১ হাজার ২৯৬ বোতল অরেঞ্জ ফেভার ড্রিংক, ১০০ মিঃলিঃ ওজনের ১ হাজার ৫১২ বোতল লিচি ফেভার ড্রিংক, ১০০ মিঃলিঃ ওজনের ১ হাজার ১৫২ বোতল লাচ্ছি এডেড মিল্ক, ৪ কেজি সাইট্রিক এসিড, ৪ কেজি তরল ম্যাংগো ফেভার, ২ কেজি পটাসিয়াম সালফেট এবং ভেজাল ও মানহীন খাদ্য পানীয় বোঝাই ১টি মিনি কাভার্ড ভ্যান জব্দ করা হয়। অভিযান টের পেয়ে কারখানার এমডি মোঃ রশিদ আলী ও ম্যানেজার মোঃ সুজন মাহমুদ কৌশলে পালিয়ে যায়।

ধৃতকে জিজ্ঞাসাবাদ ও প্রাথমিক অনুসন্ধানে র‌্যাব জানতে পারে যে, পলাতক আসামীরা পরষ্পর যোগসাজশে কয়েক বছর ধরে সাদিপুর এলাকায় জনৈক ছানোয়ারের বাসা ভাড়া নিয়ে সরকারী অনুমোদন না নিয়ে ‘আর এন আর ড্রিংকস এন্ড এগ্রো প্রোডাক্টস’ নামক ফ্যাক্টরী চালিয়ে আসছিল। এ ফ্যাক্টরীতে ‘পাতাকুড়ি’ ব্র্যান্ড নাম ধারণ করে ভেজাল ও মানহীন খাদ্য পানীয় অরেঞ্জ ফেভার ড্রিংক, লিচি ফেভার ড্রিংক ও লাচ্ছি এডেড মিল্কসহ বিভিন্ন ধরনের ভেজাল পানীয় বিএসটিআই এর অনুমোদন না নিয়েই বিএসটিআই এর লোগো ব্যবহার করে উৎপাদন ও বাজারজাত করে আসছে। ‘পাতাকুড়ি’ ব্র্যান্ড এর পণ্য তৈরির জন্য লেবেলে ব্যবহার করা ঠিকানা রায়েরবাগ যাত্রাবাড়ী, ঢাকা বাংলাদেশ থাকলেও তারা অবৈধ উপায় অবলম্বন করে সাদিপুর এলাকায় অবস্থিত ফ্যাক্টরীতে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে তৈরি করে বাজারজাত করে আসছে। এসব খাদ্য শিশু ও জনস্বাস্থ্যের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকারক। তাছাড়া ফ্যাক্টরীর নামে কোন ভ্যাট রেজিঃ নেই। তারা কোন প্রকার মূসক প্রদান না করে সরকারের রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে এই সকল অননুমোদিত ভেজাল ও মানহীন খাদ্য পানীয় নারায়ণগঞ্জ ও ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন জেলায় সরবরাহ করে আসছিল ধৃত ও পলাতক আসামীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন বলে র‌্যাব জানায়।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

নাসিকের ময়লার গাড়ির ধাক্কায় গর্ভবতীর পোশাক শ্রমিক নিহত

সোনারগাঁয়ে অনুমোদনহীন কারখানায় অভিযান বিপুল পরিমান ভেজাল খাদ্য জব্দ আটক-১

আপডেট সময় : ১০:৩০:২৬ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ অগাস্ট ২০২০

স্টাফ রিপোর্টার :সোনারগাঁয়ের সাদিপুর এলাকায় অননুমোদিত এক ভেজাল ও মানহীন বিভিন্ন খাদ্য সামগ্রী তৈরির কারখানায় অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমান ভেজাল খাদ্য ও পানি জব্দ করেছে র‌্যাব। এসময় মো: মজিবুর রহমান নামে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। সোমবার (১০ আগস্ট) সন্ধ্যায় র‌্যাব এ অভিযান চালায়।
মঙ্গলবার (১১ আগস্ট) দুপুরে র‌্যাব-১১ এর সদর দপ্তরের সিপিএসপি কোম্পানী কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো: জসিম উদ্দীন চৌধুরী পিপিএম স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।
র‌্যাব জানায়, কারখানায় তৈরি অবস্থায় ১০০ মিঃলিঃ ওজনের ১ হাজার ২৯৬ বোতল অরেঞ্জ ফেভার ড্রিংক, ১০০ মিঃলিঃ ওজনের ১ হাজার ৫১২ বোতল লিচি ফেভার ড্রিংক, ১০০ মিঃলিঃ ওজনের ১ হাজার ১৫২ বোতল লাচ্ছি এডেড মিল্ক, ৪ কেজি সাইট্রিক এসিড, ৪ কেজি তরল ম্যাংগো ফেভার, ২ কেজি পটাসিয়াম সালফেট এবং ভেজাল ও মানহীন খাদ্য পানীয় বোঝাই ১টি মিনি কাভার্ড ভ্যান জব্দ করা হয়। অভিযান টের পেয়ে কারখানার এমডি মোঃ রশিদ আলী ও ম্যানেজার মোঃ সুজন মাহমুদ কৌশলে পালিয়ে যায়।

ধৃতকে জিজ্ঞাসাবাদ ও প্রাথমিক অনুসন্ধানে র‌্যাব জানতে পারে যে, পলাতক আসামীরা পরষ্পর যোগসাজশে কয়েক বছর ধরে সাদিপুর এলাকায় জনৈক ছানোয়ারের বাসা ভাড়া নিয়ে সরকারী অনুমোদন না নিয়ে ‘আর এন আর ড্রিংকস এন্ড এগ্রো প্রোডাক্টস’ নামক ফ্যাক্টরী চালিয়ে আসছিল। এ ফ্যাক্টরীতে ‘পাতাকুড়ি’ ব্র্যান্ড নাম ধারণ করে ভেজাল ও মানহীন খাদ্য পানীয় অরেঞ্জ ফেভার ড্রিংক, লিচি ফেভার ড্রিংক ও লাচ্ছি এডেড মিল্কসহ বিভিন্ন ধরনের ভেজাল পানীয় বিএসটিআই এর অনুমোদন না নিয়েই বিএসটিআই এর লোগো ব্যবহার করে উৎপাদন ও বাজারজাত করে আসছে। ‘পাতাকুড়ি’ ব্র্যান্ড এর পণ্য তৈরির জন্য লেবেলে ব্যবহার করা ঠিকানা রায়েরবাগ যাত্রাবাড়ী, ঢাকা বাংলাদেশ থাকলেও তারা অবৈধ উপায় অবলম্বন করে সাদিপুর এলাকায় অবস্থিত ফ্যাক্টরীতে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে তৈরি করে বাজারজাত করে আসছে। এসব খাদ্য শিশু ও জনস্বাস্থ্যের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকারক। তাছাড়া ফ্যাক্টরীর নামে কোন ভ্যাট রেজিঃ নেই। তারা কোন প্রকার মূসক প্রদান না করে সরকারের রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে এই সকল অননুমোদিত ভেজাল ও মানহীন খাদ্য পানীয় নারায়ণগঞ্জ ও ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন জেলায় সরবরাহ করে আসছিল ধৃত ও পলাতক আসামীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন বলে র‌্যাব জানায়।