নারায়ণগঞ্জ ০৯:১১ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
নাসিকের ময়লার গাড়ির ধাক্কায় গর্ভবতীর পোশাক শ্রমিক নিহত সোনারগাঁয়ের ১টি হত্যা মামলার প্রধান আসামিসহ দুজনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১১ নারায়ণগঞ্জে ৩টি উপজেলায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলেন যারা গুণী জনদের পদচারণায়  উদযাপিত  দৈনিক আজকের নীর বাংলা পত্রিকা’র ১৫ তম  বর্ষপূর্তি সিদ্ধিরগঞ্জে রাজউকের অভিযানে ক্ষুব্ধ ভবন মালিকরা রেকমত আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের মজিবুর রহমান সভাপতির দায়িত্ব নিয়েই শিক্ষার মান উন্নয়নের তাগিদ অস্ত্রের লাইসেন্সের আবেদন না করেও অপপ্রচারের শিকার মহিউদ্দিন মোল্লা ! সাংবাদিক শাওনের বাবা ফিরোজ আহমেদ আর নেই রিয়াদে জমকালো আয়োজনে মাই টিভির ১৫ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন রিয়াদে প্রিমিয়াম ফুটবল লীগের ফাইনাল অনুষ্ঠিত

বন্দর সেপটিক ট্যাংক বিষ্ফোরণে দুই শিশুসহ অন্ত:সত্ত্বা নারীর মৃত্যু

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১২:১৮:২০ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৮ মে ২০২০
  • ১১৪ বার পড়া হয়েছে

বন্দর প্রতিনিধি : বন্দরে বহুতল ভবনের সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরণে দুই শিশুসহ অন্তঃসত্ত্বা এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার (৮ মে) সকাল ৬টার দিকে বন্দরের উইলসন রোডের দীঘিরপাড় মোল্লাবাড়ীতে এ ঘটনা ঘটে।
পুলিশ জানায়, বিস্ফোরিত ভবনের নিচতলার বাসিন্দা খোরশেদ আলমের দুই ছেলে মাসনুন (১২) ও জিসান (৮) ঘটনাস্থলেই মারা যায়। এদিকে গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যান পাশের বাড়ির হুমায়ুন। কবিরের ৮ মাসের অন্তঃসত্ত¡া স্ত্রী লাবনী আক্তার (৩০)। বিস্ফোরণে পাশের একটি ৪ তলা বাড়ি ও একটি টিনশেড বাড়ি ক্ষতিগ্রস্থ। আহত হন আরও ৫ জন৷ তারা হলেন, নিহত নারীর মেয়ে নাবিলা, তামান্না, শহীদ, রেকমত শেখ, রুবেল।
মৃত দুই শিশুর মা রুনা আক্তার জানান, ভোর রাতে সেহরি খেয়ে তার দুই ছেলে সেফটিক ট্যাংকের ওপরে থাকা রুমে ঘুমাতে যায়। ভোর ছয়টার দিকে হঠাৎ বিকট শব্দে ঘুম ভেঙে দেখি বিস্ফোরণে ফ্ল্যাটের চারটি রুমে ভেঙে গেছে।
এদিকে বিস্ফোরণের খবর পেয়ে বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শুক্লা সরকারসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। বিস্ফোরণে যে চারটি ভবন ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে ওই ভবনে বসবাসকারী লোকজনকে অন্যত্র সরে যেতে নির্দেশ দেন।
স্থাণীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, উইলসন রোডের রফিকুল ইসলামের পাঁচতলা ভবনটির নিচতলায় সকাল ৬টার দিকে বিকট শব্দে বিস্ফোরণ হয়। সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরণ হওয়া ঘরটিতে ঘুমোচ্ছিল ওই দুই শিশু। বিস্ফোরণে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু দুই ভাইয়ের। গুরুতর আহত অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যান অন্তঃসত্ত¡া ওই নারী। আহত অবস্থায় বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন আরও ৫ জন৷
এ বিষয়ে বন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রফিকুল ইসলাম জানান, উইলসন রোডের রফিকুল ইসলামের মালিকানাধীন পাঁচতলা বাড়ির নিচতলায় সকালে এ ঘটনা ঘটে৷ সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরণের ঘটনায় অন্তঃসত্ত¡ এক নারী ও দুই শিশু নিহত হয়েছে। আহত হয়েছেন আরও পাঁচজন।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

নাসিকের ময়লার গাড়ির ধাক্কায় গর্ভবতীর পোশাক শ্রমিক নিহত

বন্দর সেপটিক ট্যাংক বিষ্ফোরণে দুই শিশুসহ অন্ত:সত্ত্বা নারীর মৃত্যু

আপডেট সময় : ১২:১৮:২০ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৮ মে ২০২০

বন্দর প্রতিনিধি : বন্দরে বহুতল ভবনের সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরণে দুই শিশুসহ অন্তঃসত্ত্বা এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার (৮ মে) সকাল ৬টার দিকে বন্দরের উইলসন রোডের দীঘিরপাড় মোল্লাবাড়ীতে এ ঘটনা ঘটে।
পুলিশ জানায়, বিস্ফোরিত ভবনের নিচতলার বাসিন্দা খোরশেদ আলমের দুই ছেলে মাসনুন (১২) ও জিসান (৮) ঘটনাস্থলেই মারা যায়। এদিকে গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যান পাশের বাড়ির হুমায়ুন। কবিরের ৮ মাসের অন্তঃসত্ত¡া স্ত্রী লাবনী আক্তার (৩০)। বিস্ফোরণে পাশের একটি ৪ তলা বাড়ি ও একটি টিনশেড বাড়ি ক্ষতিগ্রস্থ। আহত হন আরও ৫ জন৷ তারা হলেন, নিহত নারীর মেয়ে নাবিলা, তামান্না, শহীদ, রেকমত শেখ, রুবেল।
মৃত দুই শিশুর মা রুনা আক্তার জানান, ভোর রাতে সেহরি খেয়ে তার দুই ছেলে সেফটিক ট্যাংকের ওপরে থাকা রুমে ঘুমাতে যায়। ভোর ছয়টার দিকে হঠাৎ বিকট শব্দে ঘুম ভেঙে দেখি বিস্ফোরণে ফ্ল্যাটের চারটি রুমে ভেঙে গেছে।
এদিকে বিস্ফোরণের খবর পেয়ে বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শুক্লা সরকারসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। বিস্ফোরণে যে চারটি ভবন ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে ওই ভবনে বসবাসকারী লোকজনকে অন্যত্র সরে যেতে নির্দেশ দেন।
স্থাণীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, উইলসন রোডের রফিকুল ইসলামের পাঁচতলা ভবনটির নিচতলায় সকাল ৬টার দিকে বিকট শব্দে বিস্ফোরণ হয়। সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরণ হওয়া ঘরটিতে ঘুমোচ্ছিল ওই দুই শিশু। বিস্ফোরণে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু দুই ভাইয়ের। গুরুতর আহত অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যান অন্তঃসত্ত¡া ওই নারী। আহত অবস্থায় বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন আরও ৫ জন৷
এ বিষয়ে বন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রফিকুল ইসলাম জানান, উইলসন রোডের রফিকুল ইসলামের মালিকানাধীন পাঁচতলা বাড়ির নিচতলায় সকালে এ ঘটনা ঘটে৷ সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরণের ঘটনায় অন্তঃসত্ত¡ এক নারী ও দুই শিশু নিহত হয়েছে। আহত হয়েছেন আরও পাঁচজন।