নারায়ণগঞ্জ ১১:২৬ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ফতুল্লায় যৌতুকের দাবীতে স্ত্রীকে মারধর

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১২:৪৭:৪৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ অক্টোবর ২০১৮
  • ৩৫ বার পড়া হয়েছে

ফতুল্লা প্রতিনিধি : ফতুল্লার নরসিংপুর এলাকায় যৌতুকের টাকা না পেয়ে স্ত্রীকে মারধর করেছে পাষন্ড স্বামী মিন্টু (৩৬)। এ ঘটনা ঘটেছে গত ৩ অক্টোবর রাত সাড়ে ১১টায়। এ ব্যাপারে ফতুল্লা মডেল থানায় নির্যাতনে শিকার স্ত্রী জিয়াসমিন আক্তার পলি বাদী হয়ে স্বামীসহ ৪/৫ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেছে।

এ মামলা সূত্রে জানা যায়, ফতুল্লা থানাধীন নরসিংপুর এলাকার মো.নুরুলইসলামের ছেলে মিন্টু। সে গত তিন বছর আগে মুসলিমনগর এলাকার মো.আ. মালেকের মেয়ে জিয়াসমিন আক্তার পলিকে বিবাহ করেছে। তাদের দাম্পত্য জীবনে জায়েদ (২) নামের একটি পুত্র সন্তান রয়েছে। বিয়ের পর থেকেই মিন্টু ও তার মা সালেহা বেগম (৫৫)সহ পরিবারের সদস্যরা নানা ভাবে শাররীক ও মানসিক ভাবে নির্যাতন করে আসছে। তারা দুই লক্ষ টাকা যৌতুক দাবী করে বিভিন্ন সময় মারধর করে। গত কয়েক মাস আগে পলি তার শ্বশুর বাড়ির নির্যাতন সহ্য করতে না পেয়ে নারায়ণগঞ্জ বিজ্ঞ আদালতে মামলা দায়ের করেছে। সি.আর মামলা নং ৪২/ ১৮। এই মামলার পরে পলি‘র শ্বশুর শ্বাশুড়ি ও স্থানীয় গন্য মান্যদের সাথে নিয়ে মিমাংসা হয়। এরপর তার আবার সংসার শুরু করে। গত ৩ অক্টোবর রাতে আবার সেই দুই লক্ষ টাকার যৌতুক দাবী করে পলিকে তার স্বামী মিন্টু ও পরিবারের সদস্যরা মারধর করেছে। পরে সে খানপুর হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে গতকাল ৪ অক্টিাবর দুপুরে ফতুল্লা থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

জনপ্রিয় সংবাদ

ফতুল্লায় যৌতুকের দাবীতে স্ত্রীকে মারধর

আপডেট সময় : ১২:৪৭:৪৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ অক্টোবর ২০১৮

ফতুল্লা প্রতিনিধি : ফতুল্লার নরসিংপুর এলাকায় যৌতুকের টাকা না পেয়ে স্ত্রীকে মারধর করেছে পাষন্ড স্বামী মিন্টু (৩৬)। এ ঘটনা ঘটেছে গত ৩ অক্টোবর রাত সাড়ে ১১টায়। এ ব্যাপারে ফতুল্লা মডেল থানায় নির্যাতনে শিকার স্ত্রী জিয়াসমিন আক্তার পলি বাদী হয়ে স্বামীসহ ৪/৫ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেছে।

এ মামলা সূত্রে জানা যায়, ফতুল্লা থানাধীন নরসিংপুর এলাকার মো.নুরুলইসলামের ছেলে মিন্টু। সে গত তিন বছর আগে মুসলিমনগর এলাকার মো.আ. মালেকের মেয়ে জিয়াসমিন আক্তার পলিকে বিবাহ করেছে। তাদের দাম্পত্য জীবনে জায়েদ (২) নামের একটি পুত্র সন্তান রয়েছে। বিয়ের পর থেকেই মিন্টু ও তার মা সালেহা বেগম (৫৫)সহ পরিবারের সদস্যরা নানা ভাবে শাররীক ও মানসিক ভাবে নির্যাতন করে আসছে। তারা দুই লক্ষ টাকা যৌতুক দাবী করে বিভিন্ন সময় মারধর করে। গত কয়েক মাস আগে পলি তার শ্বশুর বাড়ির নির্যাতন সহ্য করতে না পেয়ে নারায়ণগঞ্জ বিজ্ঞ আদালতে মামলা দায়ের করেছে। সি.আর মামলা নং ৪২/ ১৮। এই মামলার পরে পলি‘র শ্বশুর শ্বাশুড়ি ও স্থানীয় গন্য মান্যদের সাথে নিয়ে মিমাংসা হয়। এরপর তার আবার সংসার শুরু করে। গত ৩ অক্টোবর রাতে আবার সেই দুই লক্ষ টাকার যৌতুক দাবী করে পলিকে তার স্বামী মিন্টু ও পরিবারের সদস্যরা মারধর করেছে। পরে সে খানপুর হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে গতকাল ৪ অক্টিাবর দুপুরে ফতুল্লা থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে।