নারায়ণগঞ্জ ১২:২৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ১৯ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
মাইক্রোসফট ইনোভেটিভ এডুকেটর এক্সপার্ট বাংলাদেশ কমিউনিটি মিটআপ ২০২৩ অনুষ্ঠিত আদমজী ইপিজেডকে অশান্ত করছে জনপ্রতিনিধিরা রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্কা সিদ্ধিরগঞ্জ রিপোর্টার্স ক্লাবের কর্মকর্তাদের সাথে মহিলা লীগ নেত্রীর শুভেচ্ছা বিনিময় না’গঞ্জ কারাগারে হাজতীর মৃত্যু ফতুল্লায় চোরাইকৃত ট্যাংকলড়ী উদ্ধার আড়াইহাজারের মিথিলা টেক্সটাইল ঘুরে গেলেন ৮ দেশের রাষ্ট্রদূতসহ ১৮ দেশের প্রতিনিধি সিদ্ধিরগঞ্জ রিপোর্টার্স ক্লাবের কর্মকর্তাদের সাথে কাউন্সিলর ইকবাল হোসেনের মতবিনিময় ফতুল্লা ব্লাড ডোনার্সের উদ্যোগে শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ শিক্ষা সিলেবাস বাতিলের দাবিতে খেলাফত মজলিসের বিক্ষোভ মিছিল সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরামের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে শহরে নারী সমাবেশ ও মিছিল

চাকরি দেওয়ার নামে কোটি টাকা হাতিয়ে নেয় তারা

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১০:০৬:৪৬ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৩ অক্টোবর ২০২১
  • ৫৪ বার পড়া হয়েছে

সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধি ঃ সিদ্ধিরগঞ্জ ও ফতুল্লায় অভিযান চালিয়ে এন.আর.এস ফোর্স সিকিউরিটি সার্ভিস লিমিটেড নামক দুইটি প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান ও এমডিসহ তিনজনকে আটক করেছে র‌্যাব-১১। অনলাইন ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লোভনীয় বেতনে চাকরির বিজ্ঞাপন দিয়ে অন্তত ১২ শতাধিক লোকের সঙ্গে প্রতারণা করে কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে তারা। ভূক্তভোগীদের অভিযোগের ভিত্তিতে তাদের আটক ও উদ্ধার করা হয়েছে চাকরি প্রত্যাশী আটজন ভূক্তভোগীকে। জব্দ করা হয়েছে নিজস্ব ইউনিফর্ম, সীলসহ বিভিন্ন সরঞ্জাম।

বুধবার দুপুরে র‌্যাব-১১ এর সদর দফতরে সংবাদ সম্মেলনে এতথ্য জানান অধিনায়ক লেফটেনেন্ট কর্ণেল তানভীর মহামুদ পাশা।

আটকরা হলেন- সিদ্ধিরগঞ্জের সাহেবপাড়া এলাকার এন.আর.এস ফোর্স সিকিউরিটি সার্ভিস প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান মোঃ রফিকুল ইসলাম (৩১) ও এমডি মোঃ সাইফুল ইসলাম (২৮)। ফতুল্লার চাষাঢ়া তোলারাম কলেজ রোড এলাকার একই নামক প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান মোঃ রায়হান (৩০)।

র‌্যাব অধিনায়ক জানান, প্রতিষ্ঠান দুইটি দীর্ঘদিন ধরে বিজ্ঞাপন দিয়ে চাকরি প্রত্যাশীদের সঙ্গে প্রতারণা করে আসছিল। বেনামী বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে সিকিউরিটি গার্ড, প্রজেক্ট হেলপার, মার্কেটিং ম্যানেজার, ইলেক্ট্রিশিয়ান, ওয়েল্ডার, রড মিস্ত্রি ও রাজমিস্ত্রি প্রভৃতি পদে ১০ থেকে ৫০ হাজার টাকা বেতনে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে চাকরি প্রত্যাশীদের থেকে রেজিস্ট্রেশন ফি, মেডিকেল ফি ইত্যাদির কথা বলে ৭ থেকে ১৫ হাজার টাকা হাতিয়ে নিত। সুসজ্জিত অফিস ভাড়া নিয়ে চাকরি দেওয়ার নামে প্রতারণা করত তারা। প্রতারকদের নিয়ম মেনে টাকা দিয়ে মাসের পর মাস অফিসে আসা যাওয়া করেও চাকরি না পেয়ে টাকা ফেরত চাইলে ভয়ভীতি, হুমকি প্রদান এমনকি মারধর করত। বিগত ৬ মাসে আন্তত ১২ শতাধিক মানুষের কাছ থেকে প্রায় কোটি টাকা হাতিয়ে নেয় প্রতারকরা। তাদের বিরুদ্ধে সিদ্ধিরগঞ্জ ও ফতুল্লা থানায় আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

জনপ্রিয় সংবাদ

মাইক্রোসফট ইনোভেটিভ এডুকেটর এক্সপার্ট বাংলাদেশ কমিউনিটি মিটআপ ২০২৩ অনুষ্ঠিত

চাকরি দেওয়ার নামে কোটি টাকা হাতিয়ে নেয় তারা

আপডেট সময় : ১০:০৬:৪৬ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৩ অক্টোবর ২০২১

সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধি ঃ সিদ্ধিরগঞ্জ ও ফতুল্লায় অভিযান চালিয়ে এন.আর.এস ফোর্স সিকিউরিটি সার্ভিস লিমিটেড নামক দুইটি প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান ও এমডিসহ তিনজনকে আটক করেছে র‌্যাব-১১। অনলাইন ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লোভনীয় বেতনে চাকরির বিজ্ঞাপন দিয়ে অন্তত ১২ শতাধিক লোকের সঙ্গে প্রতারণা করে কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে তারা। ভূক্তভোগীদের অভিযোগের ভিত্তিতে তাদের আটক ও উদ্ধার করা হয়েছে চাকরি প্রত্যাশী আটজন ভূক্তভোগীকে। জব্দ করা হয়েছে নিজস্ব ইউনিফর্ম, সীলসহ বিভিন্ন সরঞ্জাম।

বুধবার দুপুরে র‌্যাব-১১ এর সদর দফতরে সংবাদ সম্মেলনে এতথ্য জানান অধিনায়ক লেফটেনেন্ট কর্ণেল তানভীর মহামুদ পাশা।

আটকরা হলেন- সিদ্ধিরগঞ্জের সাহেবপাড়া এলাকার এন.আর.এস ফোর্স সিকিউরিটি সার্ভিস প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান মোঃ রফিকুল ইসলাম (৩১) ও এমডি মোঃ সাইফুল ইসলাম (২৮)। ফতুল্লার চাষাঢ়া তোলারাম কলেজ রোড এলাকার একই নামক প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান মোঃ রায়হান (৩০)।

র‌্যাব অধিনায়ক জানান, প্রতিষ্ঠান দুইটি দীর্ঘদিন ধরে বিজ্ঞাপন দিয়ে চাকরি প্রত্যাশীদের সঙ্গে প্রতারণা করে আসছিল। বেনামী বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে সিকিউরিটি গার্ড, প্রজেক্ট হেলপার, মার্কেটিং ম্যানেজার, ইলেক্ট্রিশিয়ান, ওয়েল্ডার, রড মিস্ত্রি ও রাজমিস্ত্রি প্রভৃতি পদে ১০ থেকে ৫০ হাজার টাকা বেতনে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে চাকরি প্রত্যাশীদের থেকে রেজিস্ট্রেশন ফি, মেডিকেল ফি ইত্যাদির কথা বলে ৭ থেকে ১৫ হাজার টাকা হাতিয়ে নিত। সুসজ্জিত অফিস ভাড়া নিয়ে চাকরি দেওয়ার নামে প্রতারণা করত তারা। প্রতারকদের নিয়ম মেনে টাকা দিয়ে মাসের পর মাস অফিসে আসা যাওয়া করেও চাকরি না পেয়ে টাকা ফেরত চাইলে ভয়ভীতি, হুমকি প্রদান এমনকি মারধর করত। বিগত ৬ মাসে আন্তত ১২ শতাধিক মানুষের কাছ থেকে প্রায় কোটি টাকা হাতিয়ে নেয় প্রতারকরা। তাদের বিরুদ্ধে সিদ্ধিরগঞ্জ ও ফতুল্লা থানায় আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন।