নারায়ণগঞ্জ ০১:৫৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

আড়াইহাজারে কিশোরী ধর্ষণ মামলায় ২জন গ্রেপ্তার

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৬:০৪:১৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২১
  • ১৬ বার পড়া হয়েছে

আড়াইহাজার প্রতিনিধি,

আড়াইহাজারে কিশোরী ধর্ষণ মামলায় আপন (২০) এবং মাহাবুব (১৯)  নামে দুই আসামীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

রোববার ২১শে ফেব্রুয়ারী সন্ধায় উপজেলার খাগকান্দা ইউনিয়নের ডেঙ্গুরকান্দী (সায়দাবাজ) গ্রামে ওই কিশোরীকে ধর্ষণের ঘটনা ঘটে।

ধর্ষীতার মা জানান, আমরা কয়েকটি দেশীয়  মুরগী পালন করি এর মধ্যে ওই দিন সন্ধায় একটি মুরগী ঘরে না  ফিরে আসায় আমার মেয়ে মুরগীটি খোঁজার জন্য বাড়ীর পাশে জঙ্গলে যায়। এসময় আপন এবং মাহাবুব তাকে পেছন থেকে ঝাপটাইয়া ধরে । পরে তাকে গামছা দিয়ে মূখ চেপে ধরে হাত,পা বেধে ফহিন্যার চকে নিয়ে যায়। সেখানে নিয়ে ধর্ষীতার ইচ্ছার বিরুদ্ধে মাহাবুবের সহযোগীতায় আপন তাকে জোড় পুর্বক ধর্ষণ করে।

ওই ঘটনায় ধর্ষীতার মা বাদী হয়ে সোমবার ২২ শে ফেব্রুয়ারী দুই জনের নামে আড়াইহাজার থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।

পরে থানার ওসি মোঃ নজরুল ইসলামের নির্দেশ ক্রমে ওই দিনই এস আই সবুজ সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে গিয়ে মেঘনা বেষ্ঠিত ডেঙ্গুরকান্দী গ্রামে এক ঝটিকা অভিযান চালিয়ে ধর্ষক আপন এবং তার সহযোগী মাহাবুবকে গ্রেফতার করে।

আড়াইহাজার থানার ওসি নজরুল ইসলাম জানান, মামলার দুই আসামীকেই গ্রেফতার করে নারায়ণগঞ্জ কোর্টে প্রেরণ করা হয়েছে।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

আড়াইহাজারে কিশোরী ধর্ষণ মামলায় ২জন গ্রেপ্তার

আপডেট সময় : ০৬:০৪:১৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২১

আড়াইহাজার প্রতিনিধি,

আড়াইহাজারে কিশোরী ধর্ষণ মামলায় আপন (২০) এবং মাহাবুব (১৯)  নামে দুই আসামীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

রোববার ২১শে ফেব্রুয়ারী সন্ধায় উপজেলার খাগকান্দা ইউনিয়নের ডেঙ্গুরকান্দী (সায়দাবাজ) গ্রামে ওই কিশোরীকে ধর্ষণের ঘটনা ঘটে।

ধর্ষীতার মা জানান, আমরা কয়েকটি দেশীয়  মুরগী পালন করি এর মধ্যে ওই দিন সন্ধায় একটি মুরগী ঘরে না  ফিরে আসায় আমার মেয়ে মুরগীটি খোঁজার জন্য বাড়ীর পাশে জঙ্গলে যায়। এসময় আপন এবং মাহাবুব তাকে পেছন থেকে ঝাপটাইয়া ধরে । পরে তাকে গামছা দিয়ে মূখ চেপে ধরে হাত,পা বেধে ফহিন্যার চকে নিয়ে যায়। সেখানে নিয়ে ধর্ষীতার ইচ্ছার বিরুদ্ধে মাহাবুবের সহযোগীতায় আপন তাকে জোড় পুর্বক ধর্ষণ করে।

ওই ঘটনায় ধর্ষীতার মা বাদী হয়ে সোমবার ২২ শে ফেব্রুয়ারী দুই জনের নামে আড়াইহাজার থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।

পরে থানার ওসি মোঃ নজরুল ইসলামের নির্দেশ ক্রমে ওই দিনই এস আই সবুজ সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে গিয়ে মেঘনা বেষ্ঠিত ডেঙ্গুরকান্দী গ্রামে এক ঝটিকা অভিযান চালিয়ে ধর্ষক আপন এবং তার সহযোগী মাহাবুবকে গ্রেফতার করে।

আড়াইহাজার থানার ওসি নজরুল ইসলাম জানান, মামলার দুই আসামীকেই গ্রেফতার করে নারায়ণগঞ্জ কোর্টে প্রেরণ করা হয়েছে।