গোয়েন্দা পুলিশের হাতে পাঁকড়াও কদমতলীর ত্রাস সজু

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০১:১০:০০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১০ জানুয়ারী ২০২৩
  • ৩৭২ বার পড়া হয়েছে

সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধি : সিদ্ধিরগঞ্জের কদমতলীর ত্রাস কিশোরগ্যাং চক্রের নেতা চাঁদাবাজি ও অন্যের জমি দখলসহ একাধিক মামলার আসামি মাদকের ডিলার তানজিম কবির সজীব ওরফে সজুকে গ্রেপ্তার করেছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ। সোমবার (৯ জানুয়ারি) রাতে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে মঙ্গলবার ১০ জানুয়ারি ৫৪ ধারায় সজুকে আদালতে পাঠানো হয়েছে বলে জানান গোয়েন্দা পুলিশের ওসি আল-মামুন।
জানা গেছে, নাসিক ৭ নং ওয়ার্ডের উত্তর কদমতলী এলাকার বিএনপি নেতা মৃত হুমায়ূন কবিরের ছেলে তানজিম কবির সজীব ওরফে সজু। দুর্ধর্ষ সন্ত্রাসী সজু এলাকায় গড়ে তুলেছে বিশাল কিশোরগ্যাং বাহিনী। এলাকার মাদক ব্যবসা নিয়ন্ত্রনসহ চাঁদাবাজি ও বিভিন্ন লোকজনের জমি দখলের অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে।
স্থানীয়দের অভিযোগ, সম্প্রতি সময়ে কদমতলী এলাকার মূর্তমান আতঙ্ক সজু। এলাকায় ত্রাসের রাজস্ব কায়েম করেছে সজু বাহিনী। একের পর এক ঘটাচ্ছে নানা অপ্রিতিকর ঘটনা। এবাহিনীর হামলা মারধরের শিকার হচ্ছে নিরীহ মানুষ। সজু বাহিনী এতটাই বেপরোয়া যে পুলিশের সামনেই এসএম টুটুল নামে এক ব্যক্তিকে মারধর ও গাড়ি ভাংচুরের ঘটনাও ঘটিয়েছে। এঘটনায় তার বিরুদ্ধে থানায় মামলাও হয়েছে। বিএনপি পরিবারের সদস্য হয়েও নিজেকে যুবলীগ নেতা পরিচয় দিয়ে দলীয় ক্ষমতার দাপটে এসব করছে সজু। অথচ সজুর দলীয় কোন পদ নেই। তার বিচারের দাবিতে এলাকাবাসী মানববন্ধন ও বিক্ষোভ করেছে একাধিকবার।
জেলা গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক মো: নজরুল ইসলাম জানান, সজুর বিরুদ্ধে বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ ও বিভিন্ন সূত্রে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে সোমবার রাতে তাকে আটক করা হয়। তবে তার বিরুদ্ধে একাধিক মামলা থাকলেও এসব মামলায় আদালত থেকে জমিন প্রাপ্ত থাকায় তাকে ৫৪ ধারায় আদালতে পাঠানো হয়।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

গোয়েন্দা পুলিশের হাতে পাঁকড়াও কদমতলীর ত্রাস সজু

আপডেট সময় : ০১:১০:০০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১০ জানুয়ারী ২০২৩

সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধি : সিদ্ধিরগঞ্জের কদমতলীর ত্রাস কিশোরগ্যাং চক্রের নেতা চাঁদাবাজি ও অন্যের জমি দখলসহ একাধিক মামলার আসামি মাদকের ডিলার তানজিম কবির সজীব ওরফে সজুকে গ্রেপ্তার করেছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ। সোমবার (৯ জানুয়ারি) রাতে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে মঙ্গলবার ১০ জানুয়ারি ৫৪ ধারায় সজুকে আদালতে পাঠানো হয়েছে বলে জানান গোয়েন্দা পুলিশের ওসি আল-মামুন।
জানা গেছে, নাসিক ৭ নং ওয়ার্ডের উত্তর কদমতলী এলাকার বিএনপি নেতা মৃত হুমায়ূন কবিরের ছেলে তানজিম কবির সজীব ওরফে সজু। দুর্ধর্ষ সন্ত্রাসী সজু এলাকায় গড়ে তুলেছে বিশাল কিশোরগ্যাং বাহিনী। এলাকার মাদক ব্যবসা নিয়ন্ত্রনসহ চাঁদাবাজি ও বিভিন্ন লোকজনের জমি দখলের অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে।
স্থানীয়দের অভিযোগ, সম্প্রতি সময়ে কদমতলী এলাকার মূর্তমান আতঙ্ক সজু। এলাকায় ত্রাসের রাজস্ব কায়েম করেছে সজু বাহিনী। একের পর এক ঘটাচ্ছে নানা অপ্রিতিকর ঘটনা। এবাহিনীর হামলা মারধরের শিকার হচ্ছে নিরীহ মানুষ। সজু বাহিনী এতটাই বেপরোয়া যে পুলিশের সামনেই এসএম টুটুল নামে এক ব্যক্তিকে মারধর ও গাড়ি ভাংচুরের ঘটনাও ঘটিয়েছে। এঘটনায় তার বিরুদ্ধে থানায় মামলাও হয়েছে। বিএনপি পরিবারের সদস্য হয়েও নিজেকে যুবলীগ নেতা পরিচয় দিয়ে দলীয় ক্ষমতার দাপটে এসব করছে সজু। অথচ সজুর দলীয় কোন পদ নেই। তার বিচারের দাবিতে এলাকাবাসী মানববন্ধন ও বিক্ষোভ করেছে একাধিকবার।
জেলা গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক মো: নজরুল ইসলাম জানান, সজুর বিরুদ্ধে বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ ও বিভিন্ন সূত্রে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে সোমবার রাতে তাকে আটক করা হয়। তবে তার বিরুদ্ধে একাধিক মামলা থাকলেও এসব মামলায় আদালত থেকে জমিন প্রাপ্ত থাকায় তাকে ৫৪ ধারায় আদালতে পাঠানো হয়।