নারায়ণগঞ্জ ০১:৩৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

করোনার মধ্যেও সিদ্ধিরগঞ্জে অলি গলিতে মাদক ব্যবসায়ীদের দৌরাত্ব

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০২:৫৩:৪৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১
  • ২২ বার পড়া হয়েছে

সিদ্বিরগঞ্জ প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী লিমন ওরফে বাবা লিমনের সিন্ডিকেটের মাদক ব্যবসা দৌরাত্ব বেরেই চলছে। করোনাকালে যখন পুলিশ প্রশাসন বিভিন্ন সচেতনতা ও মানবিক কাজে ব্যস্ত তখন মাদক ব্যবসায়ীরা এ সুযোগকে কাজে লাগিয়ে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে মাদক ব্যবসায়।

নারায়ণগঞ্জ জেলার সিদ্ধিরগঞ্জ থানার বিভিন্ন এলাকায় মাদক কারবারীরাও থেমে নেই। সকাল থেকে সন্ধা পর্যন্ত মাদক বিক্রেতা ও মাদক সেবীদের দৌরাত্ব লক্ষনীয়। ফোন করলেই তারা পৌছে দেয় মাদক। মিজমিজি এলাকায় শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী লিমন ওরফে বাবা লিমনের সিন্ডিকেটরা হলো-সবুজ ওরফে বাবা সবুজ, কথিত সোর্স পরিচয় দানকারী মিজমিজি পাগলা বাড়ী এলাকার ভারাটিয়া মোঃ শাকিল, মোঃ আল আমিন, আজিবপুর রেল লাইন এলাকার একাদিক মামলার চিহিৃত আসামি  মানিক ও তার ছোট ভাই শান্ত, সাইলো রোডের গেরেজ থেকে মাদক নিয়ন্ত্রন করছে মাদক সম্রাট টুন্ডা শাহিনের ছেলে মাদক ব্যবসায়ী সোয়াদ ও বরিশাইল্লা খোকন চায়ের দোকানদার। তাদের আরো বাহীনি রয়েছে। কথিত এসব সোর্সদের মাধ্যমে এলাকায় কখন পুলিশের গাড়ী আসা যাওয়া করে খোজ খবর রাখে।

সারাদেশে মাদক বিরোধী বিশেষ অভিযান চলমান থাকলেও নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার সিদ্ধিরগঞ্জ থানা এলাকায় মাদক ব্যবসায়ীদের এখনো টনক নড়ছে না। অনেকটা আগের মতই চলছে এখানকার মাদক ব্যবসায়ীদের অপতৎপরতা। এই এলাকার পেশাদার ছোট-বড় ও পাইকারী মাদক ব্যবসায়ীরা অভিনব পন্থায় তাদের মাদক ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। রাতের আধাঁরে বিভিন্ন কৌশলে এলাকার অলি-গলিতে চলছে মাদকের কেনা বেচা।  পুলিশের তালিকাভুক্ত একাধিক মামলার আসামী থেকে শুরু করে মাদক ব্যবসায়ীরা তাদের নিজস্ব দালালদের মাধ্যমে নানা কৌশলে চালিয়ে যাচ্ছে তাদের মাদক ব্যবসা। এই পরিস্থিতিতে বিভিন্ন শ্রেণীপেশার সাধারণ মানুষ ছাড়াও অভিভাবকরা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন। তবে মাদক নির্মূলের ব্যাপারে এখনো আশার বাণী শোনাচ্ছেন জেলার আইন শৃংখলা বাহিনীর উর্ধতন কর্মকর্তারা।

সিদ্ধিরগঞ্জ নাসিক ১নং ওয়ার্ডসহ বিভিন্ন পাড়া মহল্লার অলিতে গলিতে চলছে মাদকের রমরমা ব্যবসা। মাদক বিক্রেতারা কাউকেই মানছে না। বীরদর্পে চালিয়ে যাচ্ছে ইয়াবা, ফেনসিডিল, গাঁজার রাজকীয় ব্যবসা। তবে ইয়াবার সেবনের ফলে চুরি, ডাকাতি, ছিনতাই বেড়েছে। মাদকের কারণে কিশোর গ্যাংয়েরও উৎপাত আশংকা জনক হারে বেড়েছে।

সিদ্ধিরগঞ্জের সচেতন মহল মাদকের বিরুদ্ধে সোচ্চার ভূমিকা পালন করতে পুলিশ প্রশাসনের নিকট জোর দাবি জানিয়েছেন। এছাড়া মাদকের বিরুদ্ধে জনসচেতনা বৃদ্ধির লক্ষে পুলিশ প্রশাসন এসব অপরাধের সাথে জড়িতদের এই পবিত্র রমজান মাসে মাদকের ভয়াল থাবা থেকে সিদ্ধিরগঞ্জ বাসী মুক্তি পেতে বিশেষ অভিযান চালানোর আহ্বান জানান স্থানীয় লোকজন।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

করোনার মধ্যেও সিদ্ধিরগঞ্জে অলি গলিতে মাদক ব্যবসায়ীদের দৌরাত্ব

আপডেট সময় : ০২:৫৩:৪৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১

সিদ্বিরগঞ্জ প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী লিমন ওরফে বাবা লিমনের সিন্ডিকেটের মাদক ব্যবসা দৌরাত্ব বেরেই চলছে। করোনাকালে যখন পুলিশ প্রশাসন বিভিন্ন সচেতনতা ও মানবিক কাজে ব্যস্ত তখন মাদক ব্যবসায়ীরা এ সুযোগকে কাজে লাগিয়ে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে মাদক ব্যবসায়।

নারায়ণগঞ্জ জেলার সিদ্ধিরগঞ্জ থানার বিভিন্ন এলাকায় মাদক কারবারীরাও থেমে নেই। সকাল থেকে সন্ধা পর্যন্ত মাদক বিক্রেতা ও মাদক সেবীদের দৌরাত্ব লক্ষনীয়। ফোন করলেই তারা পৌছে দেয় মাদক। মিজমিজি এলাকায় শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী লিমন ওরফে বাবা লিমনের সিন্ডিকেটরা হলো-সবুজ ওরফে বাবা সবুজ, কথিত সোর্স পরিচয় দানকারী মিজমিজি পাগলা বাড়ী এলাকার ভারাটিয়া মোঃ শাকিল, মোঃ আল আমিন, আজিবপুর রেল লাইন এলাকার একাদিক মামলার চিহিৃত আসামি  মানিক ও তার ছোট ভাই শান্ত, সাইলো রোডের গেরেজ থেকে মাদক নিয়ন্ত্রন করছে মাদক সম্রাট টুন্ডা শাহিনের ছেলে মাদক ব্যবসায়ী সোয়াদ ও বরিশাইল্লা খোকন চায়ের দোকানদার। তাদের আরো বাহীনি রয়েছে। কথিত এসব সোর্সদের মাধ্যমে এলাকায় কখন পুলিশের গাড়ী আসা যাওয়া করে খোজ খবর রাখে।

সারাদেশে মাদক বিরোধী বিশেষ অভিযান চলমান থাকলেও নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার সিদ্ধিরগঞ্জ থানা এলাকায় মাদক ব্যবসায়ীদের এখনো টনক নড়ছে না। অনেকটা আগের মতই চলছে এখানকার মাদক ব্যবসায়ীদের অপতৎপরতা। এই এলাকার পেশাদার ছোট-বড় ও পাইকারী মাদক ব্যবসায়ীরা অভিনব পন্থায় তাদের মাদক ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। রাতের আধাঁরে বিভিন্ন কৌশলে এলাকার অলি-গলিতে চলছে মাদকের কেনা বেচা।  পুলিশের তালিকাভুক্ত একাধিক মামলার আসামী থেকে শুরু করে মাদক ব্যবসায়ীরা তাদের নিজস্ব দালালদের মাধ্যমে নানা কৌশলে চালিয়ে যাচ্ছে তাদের মাদক ব্যবসা। এই পরিস্থিতিতে বিভিন্ন শ্রেণীপেশার সাধারণ মানুষ ছাড়াও অভিভাবকরা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন। তবে মাদক নির্মূলের ব্যাপারে এখনো আশার বাণী শোনাচ্ছেন জেলার আইন শৃংখলা বাহিনীর উর্ধতন কর্মকর্তারা।

সিদ্ধিরগঞ্জ নাসিক ১নং ওয়ার্ডসহ বিভিন্ন পাড়া মহল্লার অলিতে গলিতে চলছে মাদকের রমরমা ব্যবসা। মাদক বিক্রেতারা কাউকেই মানছে না। বীরদর্পে চালিয়ে যাচ্ছে ইয়াবা, ফেনসিডিল, গাঁজার রাজকীয় ব্যবসা। তবে ইয়াবার সেবনের ফলে চুরি, ডাকাতি, ছিনতাই বেড়েছে। মাদকের কারণে কিশোর গ্যাংয়েরও উৎপাত আশংকা জনক হারে বেড়েছে।

সিদ্ধিরগঞ্জের সচেতন মহল মাদকের বিরুদ্ধে সোচ্চার ভূমিকা পালন করতে পুলিশ প্রশাসনের নিকট জোর দাবি জানিয়েছেন। এছাড়া মাদকের বিরুদ্ধে জনসচেতনা বৃদ্ধির লক্ষে পুলিশ প্রশাসন এসব অপরাধের সাথে জড়িতদের এই পবিত্র রমজান মাসে মাদকের ভয়াল থাবা থেকে সিদ্ধিরগঞ্জ বাসী মুক্তি পেতে বিশেষ অভিযান চালানোর আহ্বান জানান স্থানীয় লোকজন।