নারায়ণগঞ্জ ১২:৩৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ১৯ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
মাইক্রোসফট ইনোভেটিভ এডুকেটর এক্সপার্ট বাংলাদেশ কমিউনিটি মিটআপ ২০২৩ অনুষ্ঠিত আদমজী ইপিজেডকে অশান্ত করছে জনপ্রতিনিধিরা রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্কা সিদ্ধিরগঞ্জ রিপোর্টার্স ক্লাবের কর্মকর্তাদের সাথে মহিলা লীগ নেত্রীর শুভেচ্ছা বিনিময় না’গঞ্জ কারাগারে হাজতীর মৃত্যু ফতুল্লায় চোরাইকৃত ট্যাংকলড়ী উদ্ধার আড়াইহাজারের মিথিলা টেক্সটাইল ঘুরে গেলেন ৮ দেশের রাষ্ট্রদূতসহ ১৮ দেশের প্রতিনিধি সিদ্ধিরগঞ্জ রিপোর্টার্স ক্লাবের কর্মকর্তাদের সাথে কাউন্সিলর ইকবাল হোসেনের মতবিনিময় ফতুল্লা ব্লাড ডোনার্সের উদ্যোগে শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ শিক্ষা সিলেবাস বাতিলের দাবিতে খেলাফত মজলিসের বিক্ষোভ মিছিল সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরামের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে শহরে নারী সমাবেশ ও মিছিল

ফতুল্লার বক্তাবলীতে নারী সাংবাদিকের উপর সন্ত্রাসী হামলা

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৫:৩১:১৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৫ অক্টোবর ২০২১
  • ৫৪ বার পড়া হয়েছে

ফতুল্লা প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় বক্তাবলী এলাকায় আনন্দ টিভির ফতুল্লা প্রতিনিধি নারী সাংবাদিক মনি ইসলামের উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটেছে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে রক্ষা করতে গিয়ে আহত হয়েছেন এশিয়ান টিভির ক্যামেরাম্যান আবু বক্কর সহ আরও দুই জন। শনিবার (২৩ অক্টোবর) দুপুরে ফতুল্লার বক্তাবলী আকবর নগর এলাকায় এই ঘটনা ঘটে।

হামলাকারিরা ঘটনাস্থল থেকে সাংবাদিকদের মোবাইল ফোন, মাইক্রোফোন ও হ্যান্ডি ক্যামেরা লুট করে নিয়ে যায়। আহত সাংবাদিক মনি ইসলামকে উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ শহরের ভিক্টোরিয়া জেনারেল হাসপাতালে জরুরী বিভাগে চিকিৎসা দেওয়া হয়।

পরে সাংবাদিক মনি ইসলাম নিজে বাদী হয়ে ফতুল্লা মডেল থানায় হামলাকারিদের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশ তদন্ত শেষে রোববার এ ঘটনায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেন।

ঘটনা সম্পর্কে আহত এশিয়ান টিভির ক্যামেরাম্যান আবু বক্কর ছিদ্দিক জানান, শনিবার দুপুর দেড়টায় মোটর সাইকেল যোগে আনন্দ টিভির ফতুল্লা প্রতিনিধি নারী সাংবাদিক মনি ইসলাম (২৬) ও স্থানীয় দৈনিক অগ্রবানী প্রতিদিন পত্রিকার সাংবাদিক ওমর ফারুক সৌরভ (৩৭) কে নিয়ে আমরা তিনজন ফতুল্লার বক্তাবলি ইউনিয়ন পরিষদ এলাকার উন্নয়নমূলক কার্যক্রমের সংবাদ সংগ্রহের জন্য যায়। যাওয়ার পথে মোটর সাইকেলের চাকা লিক হয়ে যাওয়ায় মেরামতের জন্য স্থানীয় একটি গ্যারেজে নিয়ে যাই। তখন মেইন রোডের পাশে দাঁড়িয়ে থাকা সাংবাদিক মনি ইসলামকে লক্ষ্য করে ইভটিজিং সহ আজেবাজে কথা বলতে থাকে ওই একই এলাকার সামেদ হাজীর ছেলে ওসমান গনিসহ অজ্ঞাত আরও ৭/ ৮ জন। সাংবাদিক মনি ইসলাম প্রতিবাদ করতে গেলে তার উপর ক্ষিপ্ত হয়ে এলোপাতাড়ি ভাবে মারধর শুরু করে।

এ সময় পাশে দাড়িয়ে থাকা এশিয়ান টিভির ক্যামেরাম্যান আবু বক্কর সিদ্দিক মনিকে রক্ষা করতে গেলে ওসমান গনির সাথে লোকজন গামছা দ্বারা আবু বক্কর ছিদ্দিক এর গলায় পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করার চেষ্টা করে। সাংবাদিক মনি আবু বক্কর সিদ্দিককে উদ্ধারের চেষ্টা করলে সে সময় ওসমান মনি ইসলামের তলপেটে স্ব-জোরে লাথি মেরে তাকে গুরুতর জখম করে। অজ্ঞাতনামা আরও ৭/৮ জন মিলে আবু বক্কর ছিদ্দিককেও মারধর করে।

এ সময় ওসমান গনি ও তার লোকজন মনি ইসলামের হাতে থাকা সনি এইচএক্সআর- এমসি ২৫০০ হ্যান্ডি ক্যামেরা যার মূল্য প্রায় ৯০ হাজার টাকা, একটি সেনিজার মাইক্রোফোন যার মূল্য প্রায় ৩৫ হাজার টাকা, একটি হাওয়াই মোবাইল যার মূল্য প্রায় ১৪ হাজার ৯ শত ৯০ টাকা, গলায় থাকা ৬ আনি ওজনের একটি স্বর্ণের চেইন যার মূল্য প্রায় ২৫ হাজার টাকা, নগদ ৩১০০ টাকা জোর করে ছিনিয়ে নেয়।

তাদের চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে ওসমান গনি ও তার সহযোগীরা ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।

ট্যাগস :

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

জনপ্রিয় সংবাদ

মাইক্রোসফট ইনোভেটিভ এডুকেটর এক্সপার্ট বাংলাদেশ কমিউনিটি মিটআপ ২০২৩ অনুষ্ঠিত

ফতুল্লার বক্তাবলীতে নারী সাংবাদিকের উপর সন্ত্রাসী হামলা

আপডেট সময় : ০৫:৩১:১৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৫ অক্টোবর ২০২১

ফতুল্লা প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় বক্তাবলী এলাকায় আনন্দ টিভির ফতুল্লা প্রতিনিধি নারী সাংবাদিক মনি ইসলামের উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটেছে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে রক্ষা করতে গিয়ে আহত হয়েছেন এশিয়ান টিভির ক্যামেরাম্যান আবু বক্কর সহ আরও দুই জন। শনিবার (২৩ অক্টোবর) দুপুরে ফতুল্লার বক্তাবলী আকবর নগর এলাকায় এই ঘটনা ঘটে।

হামলাকারিরা ঘটনাস্থল থেকে সাংবাদিকদের মোবাইল ফোন, মাইক্রোফোন ও হ্যান্ডি ক্যামেরা লুট করে নিয়ে যায়। আহত সাংবাদিক মনি ইসলামকে উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ শহরের ভিক্টোরিয়া জেনারেল হাসপাতালে জরুরী বিভাগে চিকিৎসা দেওয়া হয়।

পরে সাংবাদিক মনি ইসলাম নিজে বাদী হয়ে ফতুল্লা মডেল থানায় হামলাকারিদের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশ তদন্ত শেষে রোববার এ ঘটনায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেন।

ঘটনা সম্পর্কে আহত এশিয়ান টিভির ক্যামেরাম্যান আবু বক্কর ছিদ্দিক জানান, শনিবার দুপুর দেড়টায় মোটর সাইকেল যোগে আনন্দ টিভির ফতুল্লা প্রতিনিধি নারী সাংবাদিক মনি ইসলাম (২৬) ও স্থানীয় দৈনিক অগ্রবানী প্রতিদিন পত্রিকার সাংবাদিক ওমর ফারুক সৌরভ (৩৭) কে নিয়ে আমরা তিনজন ফতুল্লার বক্তাবলি ইউনিয়ন পরিষদ এলাকার উন্নয়নমূলক কার্যক্রমের সংবাদ সংগ্রহের জন্য যায়। যাওয়ার পথে মোটর সাইকেলের চাকা লিক হয়ে যাওয়ায় মেরামতের জন্য স্থানীয় একটি গ্যারেজে নিয়ে যাই। তখন মেইন রোডের পাশে দাঁড়িয়ে থাকা সাংবাদিক মনি ইসলামকে লক্ষ্য করে ইভটিজিং সহ আজেবাজে কথা বলতে থাকে ওই একই এলাকার সামেদ হাজীর ছেলে ওসমান গনিসহ অজ্ঞাত আরও ৭/ ৮ জন। সাংবাদিক মনি ইসলাম প্রতিবাদ করতে গেলে তার উপর ক্ষিপ্ত হয়ে এলোপাতাড়ি ভাবে মারধর শুরু করে।

এ সময় পাশে দাড়িয়ে থাকা এশিয়ান টিভির ক্যামেরাম্যান আবু বক্কর সিদ্দিক মনিকে রক্ষা করতে গেলে ওসমান গনির সাথে লোকজন গামছা দ্বারা আবু বক্কর ছিদ্দিক এর গলায় পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করার চেষ্টা করে। সাংবাদিক মনি আবু বক্কর সিদ্দিককে উদ্ধারের চেষ্টা করলে সে সময় ওসমান মনি ইসলামের তলপেটে স্ব-জোরে লাথি মেরে তাকে গুরুতর জখম করে। অজ্ঞাতনামা আরও ৭/৮ জন মিলে আবু বক্কর ছিদ্দিককেও মারধর করে।

এ সময় ওসমান গনি ও তার লোকজন মনি ইসলামের হাতে থাকা সনি এইচএক্সআর- এমসি ২৫০০ হ্যান্ডি ক্যামেরা যার মূল্য প্রায় ৯০ হাজার টাকা, একটি সেনিজার মাইক্রোফোন যার মূল্য প্রায় ৩৫ হাজার টাকা, একটি হাওয়াই মোবাইল যার মূল্য প্রায় ১৪ হাজার ৯ শত ৯০ টাকা, গলায় থাকা ৬ আনি ওজনের একটি স্বর্ণের চেইন যার মূল্য প্রায় ২৫ হাজার টাকা, নগদ ৩১০০ টাকা জোর করে ছিনিয়ে নেয়।

তাদের চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে ওসমান গনি ও তার সহযোগীরা ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।