সিদ্ধিরগঞ্জে সেনা সদস্য হত্যার ঘটনায় ৩’ছিনতাইকারী গ্রেফতার

সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধি ঃ সিদ্ধিরগঞ্জে ছিনতাইকারীদের ছুরিকাঘাতে সেনা সদস্য শাহিন আলম (২২) হত্যায় জড়িত ৩’জনকে পেশাদার ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ। উদ্ধার করা হয়েছে হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত একটি সুইচ গিয়ার চাকু। গতকাল বুধবার দুপুরে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য নিশ্চিত করেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক সার্কেল) মোহাম্মদ নাজমুল হাসান। তার আগে তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করে গত মঙ্গলবার রাতে ধৃত ছিনতাইরীদের গ্রেফতার করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদে তারা হত্যার দায় স্বীকার করেছেন বলে তিনি জানান।
ধৃত ছিনতাইকারীরা হলো- সিদ্ধিরগঞ্জ বাজার কাঠেরপুল এলাকার আলি হোসেনের ছেলে জীবন মিয়া(২৩), মিজমিজি বাতানপাড়া এলাকার সওকত আলি সিরাজের ছেলে সুমন মিয়া (২৫) ও একই এলাকার আসলাম মিয়ার ছেলে জুম্মন মিয়া (২২)। তারা পেশাদার ছিনতাইকারী। তাদের বিরুদ্ধে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা দস্যুতা ও মাদকসহ একাধিক মামলা রয়েছে বলেন জানান সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ওসি মোহাম্মদ মশিউর রহমান পিপিএম বার। সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন, সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ওসি(তদন্ত) সাইফুল ইসলাম, মামলার তদন্তকারী অিিফসার উপ-পরিদর্শক ফয়সাল আলম ও সহকারী উপ-পরিদর্শক মহসিন। নিহত শাহিন আলম চাঁপুর জেলার মতলব উত্তর থানার মানিকের কান্দি গ্রামের আইয়ুব আলির ছেলে।
অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক সার্কেল) মোহাম্মদ নাজমুল হাসান জানান, পটুয়াখালী জেলার লেবুখালী শেখ হাসিনা ক্যান্টনমেন্টে সৈনিক হিসেবে কর্মরত ছিলেন শাহিন আলম। সাত দিনের ছুটিতে গত শুক্রবার বাড়ী যাচ্ছিলেন তিনি। পথে সিদ্ধিরগঞ্জের হীরাঝিল এলাকায় তার বন্ধু ফারহাবিবের বাসায় রাতযাপন করতে মৌচাক বেঙ্গল ফ্যাসিফিক প্রাইভেট লিমিটেড কারখানার সামন থেকে মাদানীনগর দশতলা ভবন এলাকায় পৌঁছলে রাত সাড়ে তিনটার সময় তাকে ছিনতাইকারিরা আক্রমণ করে। ছিনতাকারিরা তার সঙ্গে থাকা টাকা পয়সা ছিনিয়ে নেওয়ার সময় বাধা দিলে ছিনতাইকারী জীবন ও সুমন তাদের হাতে থাকা সুইচ গিয়ার চাকু দিয়ে সেনা সদস্য শাহিন আলমের শরীরের বিভিন্ন স্থানে উপর্যুপরি আঘাত করে পালিয়ে যায়।
খবর পেয়ে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা পুলিশ তাকে উদ্ধার করে প্রথমে স্থানীয় প্রো-অ্যাকটিভ হাসপাতালে নিয়ে যায়। তার অবস্থা গুরুতর হওয়ায় ঢাকার সিএমএইচ হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করা হলে চিকিৎসাধিন অবস্থায় ভোর সাড়ে পাঁচটায় মারা যায়। এ ঘটনায় নিহত শাহিনের বড় ভাই সাইফুল ইসলাম বাদী হয়ে গত ১৫’জানুয়ারি সিদ্ধিরগঞ্জ থানা একটি হত্যা মামলা হয় দায়ের করে।